বোলো জয় জগন্নাথ ! (Jay Jagannath- these words are enough to heal your problems)

  • by

জগন্নাথ এর নামে এক মুঠো অন্ন হাঁড়িতে তুলে রাখলে ঘরে বাস করেন মা অন্নপূর্ণা ,প্রবল উন্নতিতে জীবন সুন্দর হয়ে ওঠে , তিনিই স্বয়ং নারায়ণ এই বিশ্বাস চলে আসছে বহুকাল থেকেই , জগন্নাথদেবকে পুজো করলে জীবনের সকল দুঃখ দূর হয় এক নিমেষে.

জানেন কি – দূর্গা পুজোর সঙ্গে জগন্নাথ দেবের এক আলাদা সম্পর্ক রয়েছে , দূর্গা পুজোর কাঠামো পুজো করা হয় রথ এর দিন , জগন্নাথদেব সংসারের সব থেকে মঙ্গোল মূর্তি স্বরূপ।

তিনি মানুষের সমস্তরকম শুভ ইচ্ছে পূরণ করে থাকেন, শোনা যায় জগন্নাথ দেবের নামে এক মুঠো চাল হাড়িতে রাখলে সারাজীবন আর অন্নের অভাব হয়না কোনোভাবেই। এক প্রবল শক্তির অন্য নাম জগন্নাথদেব , বাবা জগন্নাথ দেবের করুনা সারা জীবন নিজেকে গুছিয়ে রাখতে সাহায্য করে.

আমরা বাঙালিরা জগন্নাথ দেবের কাছে নানা রকম মানথ করি, মূলত পুরীর মন্দিরে গিয়েই আমরা জগন্নাথ দেব দর্শন করি, ওই মন্দিরের মধ্যে এমন এক শক্তি আছে যা হাজার দুর্বল মনের মানুষকেও শক্ত করতে পারে। পুরীতে যাওয়ার প্রধান উদ্দেশ্যই হলো জগন্নাথ দেবের মন্দির দর্শন ওখানে মানুষ নিজেদের সামর্থমত পুজো দেয়, অনেকে নিজেদের মনোস্কামনা জানাই আর সেটা পূরণ হলে আবার পুরীর মন্দির এ গিয়ে পুজো দিয়ে উজ্জাপন করে থাকেন। তাই জগন্নাথ দেবের কৃপা আমাদের সকলের উপর সর্বদাই বিরাজমান থাকে।

সকালে উঠেই ভক্তি ভোরে নাম করুন- জগন্নাথ দেবের. আপনার ভক্তি সত্যি হলে, এই করুনার সাগর দেবতা আপনার ডাকে সাড়া না দিয়ে পারবেন না. বাড়ির আসনে রেখেও নিত্য পূজা করলে, জীবন ভোরে উঠবে সুখ সমৃদ্ধে.

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।