নিয়মিত গাঢ় লিপস্টিক লাগিয়ে ঠোটঁ একদম কালো হয়ে গেছে? (How to get rid of black spots on lips)

  • by

লিপস্টিক লাগাতে আমরা কম বেশি সকলেই খুবই পছন্দ করি, আর আমাদের মধ্যে এমন অনেকেই আছেন যারা মূলত গাঢ় লিপস্টিক পড়তেই পছন্দ করেন, কিন্তু রোজ রোজ এই গাঢ় রং ঠোঁটে লাগালে ফলস্বরূপ যা হয় তা হলো ঠোঁট এর ন্যাচারাল রং টা হারিয়ে যায় এবং কেমন যেন কালচেভাব এসে যায়.

তবে শুধু লিপস্টিকের জন্য নয়, যে সকল মহিলাদের স্মোকিংয়ের অভ্যাস আছে, তাদের ঠোঁটও কালো হয়ে যায়. আবার মদ্যপানের অভ্যাস ঠোঁটের কালচে ভাবের জন্য দায়ী থাকে. অন্যদিকে, ঠোঁটের অযত্ন, বা হরমোনের সমস্যার ফলস্বরূপ ঠোঁট কালো হয়.

আর একবার ঠোঁট কালো হলে, তার থেকে মুক্তি পাওয়া বেশ ঝক্কির. কিন্তু আমাদের কিছু কিছু নিয়ম মেনে চললেই এগুলোর হাত থেকে রক্ষা পাওয়া সম্ভব হবে।

১.ঠোঁট ক্লিন করুন-

নিয়মিত বাড়ি ফিরে ঠোঁট পরিষ্কার করুন, এবং খেয়াল রাখবেন যেন একটুও লিপস্টিক ঠোঁটে লেগে না থাকে। দিনে যতবার মুখ ধোবেন ঠোঁট ও ভালো করে পরিষ্কার করে নিয়ে লিপবাম লাগান দেখবেন ঠোঁট এর আদ্রতা বজায় রাখবে , এমন লিপবাম ব্যবহার করতে হবে যাতে সান প্রটেকশন ফ্যাক্টর বা spf আছে, তাহলে ট্যান ও পড়তে পারবেনা ঠোঁটে.

২. ঠোঁট স্ক্র্যাব করুন-

দুধের শর ,মধু আর লেবুর রসের মিশ্রণ তৈরী করে তা তুলো দিয়ে ঠোঁটে লাগান শুকিয়ে গেলে অল্প চিনি ঠোঁটে হালকা ঘষে লাগান এটি স্ক্রাব এর কাজ করবে এবং আপনাকে দেবে এক উজ্জ্বল ব্রাইট ঠোটঁ। এরপরেও যদি কালচে ভাব না যাই তাহলে নিজের টুথপেষ্টের পরিবর্তন করুন , অনেকসময় টুথপেষ্টের কিছু উপাদান এ এলার্জি হলেও ঠোঁট কালো হয়ে যেতে পারে।

৩. ময়শ্চারাইস-

ঠোঁটে মাঝেমধ্যে নারকেল তেল লাগাতে পারেন তা ঠোঁট কে মোলায়েম রাখবে , শসার রস ও বেদনার রস লাগালে ঠোঁটের স্বাভাবিক রং ফিরে আসে. এগুলি মেইনটেইন করেও যদি আপনার ঠোঁটর সেই কালো ভাব ঠিক না হয় তাহলে অবশ্যই স্কিন স্পেশালিস্ট এর পরামর্শ নেওয়া জরুরি।

৪. আমন্ড অয়েল –

বাড়িতে আমন্ড অয়েল থাকলে, ব্যাস আর কিছু করতে হবে না. প্রতিদিন রাতে শুতে যাওয়ার আগে, লিপি বাং ব্যবহার করার থেকে ব্যবহার করুন আমন্ড অয়েল. দুই থেকে তিন ফোনটা আমন্ড অয়েল নিয়ে আঙুলের যোগ দিয়ে সামান্য ম্যাসাজ করুন. সারা রাতের জন্য এইভাবেই রেখে দিন. নিয়মিত ব্যবহার ঠোঁটে একটা গোলাপি আভা নিয়ে আসে.

৫. বীটরুট-

একটা বিটের সামান্য অংশ কেটে কিছুক্ষনের জন্য তা ফ্রিজে রেখে দিন. তারপর ওই ঠান্ডা ভিত্তি নিজের ঠোঁটের ওপর বুলান, দুই থেকে তিন মিনিট. তারপর এটিকে ৫ মিনিটের জন্য শুকাতে দিন. আর ধুয়ে ফেলুন.

এই ঘরোয়া টোটকা গুলির প্রয়োগ আপনার ঠোঁটকে, কোমল করে তুলবে, সাথে কালচে ভাবও কাটিয়ে তুলবে কিছুদিনের মধ্যেই.

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।