স্কিনটোন দুই মাত্রা বাড়িয়ে তুলতে বাড়িতেই এপলাই করুন চালের গুঁড়ো (Flour face pack for skin brightening)

  • by

সাধারণত রান্নার যেকোনো কাজে চালের গুঁড়ো ব্যবহার করে থাকি। আমদের রূপচর্চার ক্ষেত্রে চালের গুঁড়ো কিন্তু দারুন কাজ দেয় সে কথা অনেকেই জানেন না হয়তো। স্কিনের বিভিন্ন সমস্যা থেকে চটজলদি এবং পুরোপুরি ভাবে মুক্তি পেতে গেলে চালের গুঁড়ো কিন্তু দারুণ একটা ঘরোয়া পণ্য।

প্রতিনিয়ত দূষণের মাত্রা বাড়ছে এর ফলে আমাদের ত্বকে উজ্জ্বলতা কমে যাচ্ছে। খুব তাড়াতাড়ি ত্বকের উজ্জ্বলতা ফিরিয়ে আনতে চান ,সেক্ষেত্রে চালের গুঁড়ো দিয়ে ফেসপ্যাক তৈরি করে ব্যবহার করুন। এর জন্য ঠিক কিভাবে চালের গুঁড়ো ব্যবহার করবেন ।আসুন দেখে নেওয়া যাক।

কিভাবে ব্যবহার করবেন-

গ্লোইং –

1। ত্বকের উজ্জ্বলতা ফিরিয়ে আনতে প্রথমে এক টেবিল চামচ চালের গুঁড়ো, এক চামচ ওটস গুঁড়ো, এক চা চামচ মধু এবং এক চা-চামচ ঠান্ডা দুধ একসাথে মিশিয়ে একটি পেস্ট তৈরি করে নিন ।এবার এই পেস্ট টি মুখে লাগিয়ে নিয়ে আলতো হাতে পাঁচ থেকে দশ মিনিট ম্যাসাজ করুন ফেস প্যাক শুকিয়ে গেলে ঠাণ্ডা জলে মুখ ধুয়ে নিন। এই ফেসপ্যাক সপ্তাহে দুবার ব্যবহার করতেই পারেন।

ট্যান তুলতে-

2। নাছোড় ট্যান তুলতে চালের গুঁড়োর সাথে গোলাপজল মিশিয়ে লাগাতে পারেন। আসলে চালের গুঁড়ো আমাদের ত্বকের উপরে মরা কোষ ও কালো ভাব দূর করে ত্বক কে উজ্জ্বল করতে সাহায্য করে। আর গোলাপ জল ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখে।

ডার্ক সার্কেল-

3। ডার্ক সার্কেল দূর করতে এক টেবিল চামচ চালের গুঁড়ো সঙ্গে একটা গোটা টমেটোর রস ,এক টেবিল চামচ বেসন এবং এক চিমটি হলুদ মিশিয়ে একটি পেস্ট তৈরি করুন। এবার ভাল করে মুখ পরিষ্কার করে ধুয়ে নিন। তারপর এই মিশ্রণটি মুখে লাগিয়ে নিন। তারপর শুকিয়ে গেলে ।উষ্ণ জলে একটি নরম তোয়ালে ভিজিয়ে তা দিয়ে মুখ পরিষ্কার করুন। প্রতিদিন ব্যবহার করুন এই প্যাকটি। এতে খুব দ্রুত ডার্ক সার্কেল দূর হয়।

মেক আপের আগে-

৪। আবার চালের গুঁড়ো সঙ্গে এক টেবিল চামচ মধু আর এক চামচ গোলাপজল মিশিয়ে ফেসপ্যাক বানিয়ে মুখে লাগাতে পারেন। তার ঠিক পনেরো মিনিট পর মুখ ধুয়ে নিন। দ্রুত ট্যান দূর করতে এটি ব্যবহারের উপযোগী।

ব্যাস আর কারিখানিক টাকা খরচ করার দরকার নেই পার্লারে গিয়ে, নিজের স্কিনের টোন বাড়ানোর জন্য। বরং বাড়িতে বসেই এই ঘরোয়া টোটকা মানলেই মিলবে সুরাহা।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।