মুখের সঙ্গে মানানসই হেয়ার কাট ! (Do makeover with a new haircut)

  • by

আমাদের সকলেরই হেয়ার কাট নিয়ে নানারকম প্লানিংস থাকে , কিন্তু এই হেয়ার কাট করার কিছু সঠিক নিয়ম আছে যেগুলো না জানলে আপনি অনেক ভালো পার্লার থেকে কাটিং করলেও আপনাকে অতটাও মানবেনা, যেমন গোলমুখের জন্য একরকম স্পেশাল হেয়ার কাট রয়েছে, আবার লম্বা মুখের জন্য আলাদা রকম হেয়ার কাট রয়েছে। মুখের শেপ অনেকরকম হয়ে থাকে যেমন – রাউন্ড , স্কোয়ার, ওভাল জাতীয়।

রাউন্ড ফেস –

রাউন্ড ফেস এর মেয়েদের চুল খুব বেশি ছোট হলে একদম ভালোলাগেনা, চেষ্টা করতে হবে গোল মুখকে একটু লম্বাটে দেখাতে তাই সেভাবে চুল কাটা দরকার ,রাউন্ড ফেস এ সামনের চুল খুব বেশি ছোট করা ঠিক নয় , তাহলে মুখ আরো বেশি গোল দেখাবে , তাই একটু গাল ঢাকা থাকবে এরম কাটিং করা জরুরি,লং লেয়ার্স সব থেকে ভালো মানাবে।

স্কোয়ার ফেস –

যাদের jaw লাইন খুব স্পষ্ট হয় , মিডিয়াম ওয়েভ সব থেকে ভালোলাগে শোল্ডার লেংথ অব্দি চুল খুব ভালো লাগবে। সামনে তা ছোট করলে কপালের উপর চুল থাকলে ভালো লাগবে স্কোয়ার ফেস এ। মিডিয়াম লেয়ার, স্মল কার্ল খুব ভালো লাগে ।

ওভাল ফেস –

এই আকারের মেয়েদের সবরকম লেয়ার্স খুব ভালো মানায়, মাঝামাঝি চুল থাকলে ভালো মানাবে। সাইড পাটিং করা যাবে এরম কাটো করলে লুক আরো সুন্দর আসবে।

তো আশা করি অনেকটাই পরিষ্কার হয়ে গেছেন, আপনার মুখটির, আকৃতি অনুসারে, কোন হেয়ারকাটটি, আপনার জন্য বেস্ট হবে? তো আর দেরি নয়, আজি কোনো ভালো স্যালোনে গিয়ে নিজের পছন্দের হেয়ারকাটটি করে, করে ফেলুন মেকওভার.

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।